মা ফাতেমা (সাঃআঃ) এর কিছু অসিয়তনামা —

আমার মৃত্যু সম্পর্কে কাউকে অবগত করবেন না —-

ফাতেমা যাহরা (সাঃআঃ) এর ওসিয়তের কিছু অংশ বিশেষ —

হযরত ফাতেমা যাহরা (সাঃআঃ) তাঁর স্বামী ইমাম আলি (আঃ) কে বলেন , আমার গোসল , কাফন এবং দাফন আপনি করবেন এবং যারা বনী সকীফার ষড়যন্ত্রের পরিচালক ছিল তারা যেন আমার জানাযাতে অংশগ্রহণ না করে ।
সূত্র – রওযাতুল ওয়ায়েযিন , পৃষ্ঠা – ১৩০ / কাশফুল গুম্মা , খন্ড – ২ , পৃষ্ঠা – ৬৮ ।

ষষ্ঠ ইমাম জাফর সাদিক (আঃ) হযরত ফাতেমা যাহরা (সাঃআঃ) এর ওসিয়ত সম্পর্কে বলেন , হযরত ফাতেমা যাহরা (সাঃআঃ) ইমাম আলি (আঃ) কে ওসিয়ত করেন যে , আমার মৃত্যু সম্পর্কে আপনি শুধুমাত্র উম্মে সালমা (রাঃ) , উম্মে আয়মন (রাঃ) , আমার দাসি ফিজ্জা , আমার দুই সন্তান হাসান (আঃ) ও হুসাইন (আঃ) , আব্বাস , সালমান , আম্মার , মেকদাদ , আবু যার , হুযাইফা (রাঃ) ব্যতীত আর কাউকে অবগত করবেন না ।
সূত্র – দালায়েলুল ইমামা , পৃষ্ঠা – ৪৪ / বিহারুল আনওয়ার , খন্ড – ৭৮ , পৃষ্ঠা – ৩১০ ।

হযরত ফাতেমা যাহরা (সাঃআঃ) আসমা বিনতে উমাইসকে বলেন , আপনি এবং হযরত আলি (আঃ) এ দুজনেই আমকে গোসল দিবেন এবং উক্ত কাজে অন্য কাউকে অংশগ্রহণের অনুমতি দিবেন না ।
সূত্র – যাখায়েরুল উকবা , পৃষ্ঠা – ৫৩ ।

আমার মৃত্যু সম্পর্কে আমার পিতা রাসুল (সাঃ) এর শত্রুরা এবং আমার শত্রুরা যেন অবগত না হয় —

হযরত ফাতেমা যাহরা (সাঃআঃ) তাঁর স্বামী ইমাম আলি (আঃ) কে বলেন , যারা আমার উপরে অত্যাচার করেছে ও আমার প্রাপ্য অধিকারকে জববরদখল করেছে তারা এবং তাদের অনুসারীরা যেন আমার জানাযাতে অংশগ্রহণ না করে ।
সূত্র – বিহারুল আনওয়ার , খন্ড – ৪৩ , পৃষ্ঠা – ২০৯ ।

প্রিয় পাঠক ,
মহানবী (সাঃ) এর ইন্তেকালের পরপরই কিছু পথভ্রষ্ট কুখ্যাত সাহাবা নামধারী ব্যক্তিগন মা জননী ফাতেমা যাহরা (অাঃ) এর পবিত্র গৃহে অগ্নিসংযোগ করে গর্ভস্থ সন্তান সহ নবীকন্যাক হত্যা করেছিল ।
ঐ হত্যাকারীগন যেন কিছুতেই নবীকন্যার জানাজাতে অংশগ্রহন করতে না পারে – সে ওসীয়ত স্বয়ং নবীকন্যা ওঁনার জীব্বদশাতেই করে গিয়েছিলেন ।

জানেন কি , ওরা কারা ?

SKL